শিরোনাম

মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবলে যুক্ত হচ্ছে বাংলাদেশ | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - ফোরজির কার্যক্রম শুরু হচ্ছে মার্চে | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - ড্যাফোডিলে জিডিজি বাংলার বাংলা চ্যালেঞ্জ | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - বাগেরহাটে আইসিটি ক্যারিয়ার ক্যাম্প | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - ভালোবাসা দিবস উপলক্ষে হুয়াওয়ের ‘লাভ ইন ফোকাস’ | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - অনলাইনে কেনাবেচায় প্রতারণা রোধে বিক্রয় ডটকমের পদক্ষেপ | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে গ্রামীণফোনের সাশ্রয়ী ডাটা প্যাক | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - ‘গ্রীন অফিস’ স্বীকৃতি পেল বাংলালিংক | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - পেইজা ব্যবহারকারীদের জন্য ২১% মূল্য ছাড় | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারী 21, 2017 - মাইক্রোম্যাক্সের নতুন স্মার্টফোন কিউ৩৯৮ |
প্রথম পাতা / সাম্প্রতিক খবর / ফিচার পোস্ট / অ্যাপলের নতুন ম্যাকবুক প্রো
অ্যাপলের নতুন ম্যাকবুক প্রো

অ্যাপলের নতুন ম্যাকবুক প্রো

2016-macbook-proবৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত হয় অ্যাপলের অক্টোবর ২০১৬ ইভেন্ট। সেখানে উন্মোচন করা হয়েছে নতুন ম্যাকবুক প্রো। এতে রয়েছে নতুন অর্গানিক লাইট-এমিটিং ডায়োড (ওএলইডি) সংবলিত টাচ বার।

অ্যালুমিনিয়ামে তৈরি ম্যাকবুকটির কিবোর্ডে উপরের দিকে রয়েছে নতুন ওএলইডি টাচস্ক্রিন। সিলভার ও গ্রে রঙে পাওয়া যাবে এটি।

দুটো আকারে আনা হয়েছে ম্যাকবুক প্রো। ১৩ ইঞ্চির মডেলটি আয়তনের দিক দিয়ে আগের সংস্করণটির তুলনায় ২৩ শতাংশ ছোট। পুরুত্ব মাত্র ১৪ দশমিক ৯ মিলিমিটার। তাই পুরনো মডেলের চেয়ে এটি হালকা, তা বলা বাহুল্য। আর ১৫ ইঞ্চির প্রো ১৫ দশমিক ৫ মিলিমিটার পুরু। আগের মডেলের চেয়ে ছোট আকারে ২০ শতাংশ। ওজন মাত্র ৪ পাউন্ড, যা পুরনো মডেলের মাত্র অর্ধেক। ১৩ ইঞ্চি নতুন ম্যাকবুক প্রোর রয়েছে দুটি সংস্করণ। একটি সংস্করণে ওএলইডি টাচ বার রাখা হয়েছে, অন্যটিতে রাখা হয়নি।

ম্যাকবুক প্রোতে ব্যবহার করা হয়েছে নতুন ওএলইডি রেটিনা ডিসপ্লে। নতুন স্ট্রিপের বাটনগুলো ব্যবহূত সফটওয়্যারে নির্ভর করে পাল্টে যাবে। যেমন: কেউ ক্রোম ব্রাউজার ব্যবহার করলে টাচ বারে তার পছন্দের ওয়েবসাইটগুলো দেখানো হবে। এছাড়া টাচ বারের মাধ্যমে ঠিক করা যাবে ডিসপ্লের উজ্জ্বলতা, সাউন্ড ভলিউম।

এন্ট্রি-লেভেল ১৩ ইঞ্চির ম্যাকবুক প্রোতে ব্যবহার করা হয়েছে ২.০ গিগাহার্টজ ডুয়াল-কোর ইন্টেল কোর আই৫ প্রসেসর। এছাড়া আছে ৩.১ গিগাহার্টজ পর্যন্ত গতিসমপন্ন টার্বো বুস্ট, তথ্য সংরক্ষণক্ষমতা ৮ জিবি ও ২৫৬ জিবি ফ্ল্যাশ স্টোরেজ।

টাচ বার-সংবলিত ১৩ ইঞ্চির ম্যাকবুক প্রো মডেলে ব্যবহার করা হয়েছে ২.৯ গিগাহার্টজ ডুয়াল-কোর ইন্টেল কোর আই৫ প্রসেসর। এর টার্বো বুস্ট ৩.৩ গিগাহার্টজ পর্যন্ত গতি উঠাতে সক্ষম। ১৫ ইঞ্চির ম্যাকবুক প্রোতে রয়েছে ২.৬ গিগাহার্টজ কোয়াড-কোর ইন্টেল কোর আই৭ প্রসেসর। এর টার্বো বুস্টের গতি উঠতে পারে ৩.৫ গিগাহার্টজ পর্যন্ত। আরো আছে ১৬ জিবি তথ্য সংরক্ষণক্ষমতা, ২৫৬ জিবি ফ্ল্যাশ স্টোরেজ।

কুইক টাইপ সাজেশন রয়েছে অ্যাপলের নতুন টাচ বারে। বিষয়টির সঙ্গে অবগত আইফোন অথবা আইপ্যাড ব্যবহারকারীরা। কুইক টাইপে থাকে ওয়ার্ডস, ইমোজিসহ আরো কিছু।

১৩ ও ১৫ ইঞ্চি— দুটো ম্যাকবুকই একবার চার্জ দিয়ে এটি এক নাগাড়ে ১০ ঘণ্টা কাজ করা যাবে।

১৩ ইঞ্চির ম্যাকবুক প্রো মডেলের দাম শুরু ১ হাজার ৭৯৯ ডলার থেকে। এছাড়া ১৫ ইঞ্চির মডেলটির কিনতে ব্যয় করতে হবে ন্যূনতম ২ হাজার ৩৯৯ ডলার। এন্ট্রি-লেভেল ম্যাকবুক প্রোটিতে নেই টাচ বার। এর দাম শুরু ১ হাজার ৪৯৯ ডলার থেকে।

ম্যাকবুক প্রোর প্রাক-ক্রয়াদেশ নেয়া শুরু হয়ে গেছে এরই মধ্যে। দু-তিন সপ্তাহের মধ্যেই নতুন টাচ বার মডেল সরবরাহ শুরু হবে। এন্ট্রি-লেভেল ১৩ ইঞ্চির ম্যাকবুক প্রোও পাওয়া যাচ্ছে স্টোরগুলোয়।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top