শিরোনাম

বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী 19, 2017 - বাংলাদেশেই তৈরি হবে সকল ডিজিটাল ডিভাইস : মোস্তাফা জব্বার | বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী 19, 2017 - যে কারণে অনলাইন অ্যাকাউন্টে কঠিন পাসওয়ার্ড দিবেন | বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী 19, 2017 - ফিশিং জালিয়াতির শিকার হচ্ছেন জিমেইল ব্যবহারকারীরা | বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী 19, 2017 - দেশের বাজারে লেনোভোর এইচডি ডিসপ্লের ল্যাপটপ | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - হিটাচি প্রজেক্টরে ম্যাজিক অফার | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - বাংলাদেশে ডি-লিংক কাস্টমার কেয়ার সেন্টারের অংশীদার কম্পিউটার সোর্স | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - অপ্পোর নতুন ২ স্মার্টফোনে গ্রামীণফোনের ফ্রি ইন্টারনেট | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল এর পার্টনার মিট | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - ইউটিউবের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ছে পর্নগ্রাফি ভিডিও | বুধবার, জানুয়ারী 18, 2017 - আসছে স্বল্প মূল্যের অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান ফোন |
প্রথম পাতা / কর্পোরেট স্পেশাল / ভারতে ৫০ গিগা ব্যান্ডউইথ রফতানি সেপ্টেম্বর থেকে
ভারতে ৫০ গিগা ব্যান্ডউইথ রফতানি সেপ্টেম্বর থেকে

ভারতে ৫০ গিগা ব্যান্ডউইথ রফতানি সেপ্টেম্বর থেকে

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় ৭টি রাজ্যে ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ রফতানি (লিজ দেবে) করবে বাংলাদেশ। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার বাংলাদেশ থেকে অন্তত ৫০ গিগাবাইট ব্যান্ডউইথ নিতে আগ্রহ প্রকাশ করে এ ব্যাপারে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়কে আনুষ্ঠানিক প্রস্তাবও দিয়েছে।
ব্যান্ডউইথ পরিবহনের জন্য ক্যাবল বসানো এবং লিংক তৈরির মতো কাজ বাকি রয়েছে। italy-bandwidth এ ব্যাপারে ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মনোয়ার হোসেন জানান, দেশের প্রয়োজন মিটিয়ে উদ্বৃত্ত ব্যান্ডউইথ রফতানি করা হবে। তার আগে ভারতের কাছ থেকে কারিগরি ও আর্থিক প্রস্তাব পেতে হবে। তিনি বলেন, ¯আগামী ৪ থেকে ৫ বছরের জন্য ব্যান্ডউইথের চাহিদা নিরূপণ করে ৮০-১০০ গিগার মতো রফতানি করা যেতে পারে।’
বর্তমানে বাংলাদেশে ব্যান্ডউইথের পরিমাণ ২৫০ গিগাবাইট পার সেকেন্ড (জিবিপিএস)। এর মধ্যে বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবলেরই রয়েছে ২০০ গিগা। অবশিষ্ট ৫০ গিগা হলো ইন্টারন্যাশনাল টেরেস্ট্রিয়াল ক্যাবল অপারেটরসহ (আইটিসি) অন্যদের। দেশে মোট ব্যান্ডউইথের মাত্র ৪২ গিগা ব্যবহার হয়। অবশিষ্ট ২০৮ গিগা ব্যান্ডউইথ ব্যবহার না হওয়ায় অব্যবহৃত থেকে যাচ্ছে।
ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় আসাম, ত্রিপুরা, মেঘালয়, মিজোরাম, নাগাল্যান্ড, মনিপুর ও অরুণাচল প্রদেশের জন্য ১০ গিগা করে ব্যান্ডউইথ আমদানির প্রস্তাব দিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার। সম্পূর্ণ না হলেও অন্তত ৫০ গিগা ব্যান্ডউইথ দিয়ে রাজ্যগুলোর তথ্যপ্রযুক্তি সম্পর্কিত কাজ সম্পন্ন করা সম্ভব হবে। আখাউড়া দিয়ে ত্রিপুরা এবং বাংলাবান্ধা দিয়ে দার্জিলিং হয়ে ব্যান্ডউইথ পরিবহনের পরিকল্পনা রয়েছে দেশটির।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ভারতের ১৬টি সাবমেরিন ক্যাবল সংযোগ রয়েছে। এর সবই ভারত মহাসাগর ও আরব সাগরের পারকেন্দ্রিক রাজ্যগুলোর সঙ্গে সংযুক্ত। সাবমেরিন ক্যাবলগুলোর ল্যান্ডিং স্টেশন থেকে উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যগুলোর দূরত্ব বেশি হওয়ায় ব্যান্ডউইথ পরিবহন খরচ অনেক বেশি পড়ে যায়। ফলে স্থানীয়ভাবে ইন্টারনেটের দামও বেড়ে যায় কয়েকগুণ। বাংলাদেশ থেকে ব্যান্ডউইথ নিলেও অবকাঠামো নির্মাণ ও পরিবহন খরচ কম হবে- এ কারণে ভারত বাংলাদেশ থেকে ব্যান্ডউইথ নিতে আগ্রহী। তবে ব্যান্ডউইথের দাম কত হবে সে বিষয়ে দু’দেশের মধ্যে এখনো কোনো আলোচনা হয়নি বলে জানা গেছে। বিএসসিসিএল বর্তমানে প্রতি মেগা ব্যান্ডউইথ বিক্রি করছে ৪ হাজার ৮০০ টাকায়। এর আগেও বাংলাদেশ থেকে সিঙ্গাপুরের সিংটেল ২ দশমিক ৫ গিগা ব্যান্ডউইথ কেনার আগ্রহ দেখিয়েছিল।
বাংলাদেশ এ ব্যাপারে উদ্যোগ নিলেও তা ফলপ্রসূ হয়নি। ভারতের পাশাপাশি, নেপাল, ভূটান এবং মিয়ানমারও বাংলাদেশ থেকে ব্যান্ডউইথ নিতে আগ্রহী বলে জানা গেছে।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top