শিরোনাম

মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - যে সব কারণে কিনবেন নোকিয়া ৮ | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল কলেজে নবীনবরণ অনুষ্ঠিত | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - কে করবে অস্ত্রোপচার ? | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - আসছে স্যামসাংয়ের নতুন ট্যাব | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - চেক লেখার সময়ে এই ভুলগুলি করলেই ফাঁকা হবে অ্যাকাউন্ট! | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - জিওনির কম বাজেটের নতুন স্মার্টফোন | মঙ্গলবার, আগস্ট 22, 2017 - নিটল ইলেকট্রনিক্স এর শোরুম এখন সিলেটে | সোমবার, আগস্ট 21, 2017 - সীমান্তে অবৈধ টাওয়ার, ১৭ কোটি টাকা জরিমানা গুনতে হবে বাংলালিংককে | সোমবার, আগস্ট 21, 2017 - টাকা ওঠাতে চার্জ বেশি নিচ্ছে বিকাশ | সোমবার, আগস্ট 21, 2017 - এরিকসনে বিনা নোটিশে ৫০ কর্মী ছাঁটাই করায় অবরুদ্ধ শীর্ষ কর্মকর্তারা |
প্রথম পাতা / সোশ্যাল মিডিয়া / মনের খবর ফেসবুক এর কাছে
মনের খবর ফেসবুক এর কাছে

মনের খবর ফেসবুক এর কাছে

mental-fbফেসবুকে আপনার কার্যক্রম দেখেও অনেক কিছু বুঝে নেওয়া যায়। ফেসবুকে যা লাইক দেনপোস্ট করেন বা  পোস্ট করেন তা দেখে বোঝা যাবে আপনি ডিপ্রেশন বা সিজোফ্রেনিয়াতে ভুগছেন কিনা।

ক্যামব্রিজ ও স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষজ্ঞরা সোশাল মিডিয়ায় মানুষের আচরণ নিয়ে গবেষণা করছেন। তাদের বাস্তব জীবনের আচরণের চেয়ে সোশাল মিডিয়ার আচরণে ব্যক্তিত্ব সম্পর্কে ভালোমতো বিশ্লেষণ করা যায়। এর কারণ মানুষ, বিশেষ করে বাস্তবের চেয়ে অনলাইনেই তাদের আবেগ পরিষ্কারভাবে প্রকাশ করে টিনএজাররা।

ল্যানসেট সাইকিয়াট্রিতে প্রকাশিত গবেষণাপত্রে প্রধান গবেষক ড. বেকি ইনকস্টার বলেন, ফেসবুক দারুণ জনপ্রিয় মাধ্যম। মানুষের মানসিক অবস্থা ও জ্ঞানের পরিধি বিচারে অনেক তথ্য দেয় ফেসবুক। এখান থেকেই বোঝা যায় কেউ বিষণ্নতা বা সিজোফ্রেনিয়ায় ভুগছেন কিনা।

বিশেষজ্ঞদের মতে, ছবি ও পোস্টে মানুষের ক্রমাগত লাইক দেখেই তাদের মানসিকতা সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যায়। বিশেষ করে এখান থেকেই অফলাইনে তাদের আচরণ কেমন হবে তা পরিষ্কার হয়। বাস্তব জীবনে কোন মানুষটি কেমন তা সোশাল মিডিয়াতেই বোঝা যায়।

এর আগে সোশাল মিডিয়া নিয়ে অনেক গবেষণাই হয়েছে। এসব গবেষণায় মূলত মানুষের ওপর মিডিয়ার প্রভাব নিয়ে বিশ্লেষণ করা হয়েছে।

মনে নেতিবাচক আবেগ দেখা দেয় আনফ্রেন্ড হলে। আবার নিউজ ফিডও তাদের মেজাজ বদলে দিতে পারে। আবার ফেসবুকের মাধ্যমে কেবল মানুষের সমস্যা চিহ্নিত করাই নয়, তার সমাধানও মিলতে পারে।

ড. ইনকস্টার বলেন, ফেসবুকে সম্পর্কের মাধ্যমে সেই মানুষদের উপকার করা সম্ভব যারা আত্মবিশ্বাসের অভাবে ভুগছেন। যারা সবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে জীবন কাটান তাদের সবার মাঝে ফিরিয়ে আনা সম্ভব। যে সকল মানুষ মারাত্মক বিষণ্নতা ও আত্মহত্যা প্রবণতায় ভুগছেন, তাদের স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনা সম্ভব সোশাল মিডিয়ার মাধ্যমেই।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top