শিরোনাম

মঙ্গলবার, জুলাই 25, 2017 - ১৪৬ প্রতিষ্ঠানের সদস্যপদ বাতিল করলো বেসিস | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - দেশের সব মোবাইল টাওয়ার চালাবে নতুন চার কোম্পানি | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - এইচপির নতুন প্রিন্টার বাজারে আনল ফ্লোরালিমিটেড এবং স্মার্ট টেকনোলজি | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - এক্সপেরিয়েন্স প্যারিস উইথ মাস্টারকার্ড ক্যাম্পেইনের বিজয়ীদের নাম ঘোষণা | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - অবৈধ পথে মোবাইল আমদানি:বছরে ৮০০ কোটি টাকার রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - ট্যালেন্ট ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের আওতায় গ্র্যাজুয়েশন করলেন রবি’র ৩১ কর্মকর্তা | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - বাংলাদেশী রিং আইডির লাইভ চ্যাটে আসছেন সানি লিওন (ভিডিও) | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সে বিশেষ ছাড় পাবেন গ্রামীণফোনের স্টার গ্রাহকরা | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - দেশে শতকরা ৪৩ ভাগ প্রেমের বিয়েই বিচ্ছেদ পর্যন্ত গড়ায়:বিবাহবিডি জরিপ | সোমবার, জুলাই 24, 2017 - ইনোভেটিভ টিচিং এন্ড লার্নিং এক্সপো ঢাকায় |
প্রথম পাতা / স্থানীয় খবর / যশোরের নোয়াপাড়ায় ডিজিটাল স্কুলের যাত্রা শুরু
যশোরের নোয়াপাড়ায় ডিজিটাল স্কুলের যাত্রা শুরু

যশোরের নোয়াপাড়ায় ডিজিটাল স্কুলের যাত্রা শুরু

‘শিক্ষাব্যবস্থা কাগজনির্ভর ছিল কাগজের সভ্যতায়। আমরা এখন ডিজিটাল সভ্যতায় তাই শিক্ষাব্যবস্থা এখন ডিজিটাল হচ্ছে। একসময়ে বই- খাতা- কলম- চক- ডাস্টার দিয়ে শিক্ষার ব্যবস্থা হতো। এখন ছাত্র- ছাত্রীদের হাতে ডিজিটাল যন্ত্র থাকে। আমরা পিছিয়ে পড়া জাতি বলে ডিজিটাল শিক্ষায় পিছিয়ে থাকতে পারিনা।’

যশোরের নোয়াপাড়ার প্রফেসর পাড়ার মোড়ে বর্ণমালা ই-স্কুল উদ্বোধনকালে দেশে ডিজিটাল শিক্ষাব্যবস্থা প্রচলনের অগ্রনায়ক ও বিজয় বাংলা কীবোর্ডের জনক প্রযুক্তিবিদ মোস্তাফা জব্বার এ কথা বলেন।

jessore-e-school-corporateগত ২১ নভেম্বর ২০১৫ সকাল ১০টায় যশোরের নোয়াপাড়ার প্রফেসর রোডে বর্ণমালা ই-স্কুলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি আরও বলেন,‘৯৯ সালে শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরের যে উদ্যোগ আমি নিয়েছিলাম সেটির এখন ব্যাপক বিস্তার ঘটছে। আমরা তখন কম্পিউটার শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করেছিলাম। সরকার ২০১১ সাল থেকে আামদের সেই উদ্যোগকে হাই স্কুল ও কলেজে বাস্তবায়ন করছে। আমরা তখন ক্লাশরুমে কম্পিউটার নিয়েছিলাম। একদিন দেশের সকল ক্লাশরুমে ডিজিটাল যন্ত্র যাবে।’

এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি ২০১৬ সাল থেকে বিজয় শিশু শিক্ষা ও বিজয় প্রাথমিক শিক্ষা ব্যবহার করে ছাত্র-ছাত্রীদেরকে শ্রেণিকক্ষে পাঠদান করবে। উক্ত অনুষ্ঠানে বিজয় ডিজিটাল এর প্রধান নির্বাহী জেসমিন জুঁই বিজয় শিশু শিক্ষা ও বিজয় প্রাথমিক শিক্ষা সফটওয়্যার প্রদর্শন করেন। এসব সফটওয়্যার দিয়ে শিশু শ্রেণি থেকে দ্বিতীয় শ্রেণি পর্যন্ত বই ছাড়াও শিক্ষা প্রদান করা যায়। জেসমিন জুই এসব সফটওয়্যারের প্রণেতা।

এর আগের সন্ধ্যায় জনাব মোস্তাফা জব্বার ও জেসমিন জুঁই স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকাদেরকে ডিজিটাল পদ্ধতিতে শিক্ষাদান বিষয়ে প্রশিক্সণ প্রদান করেন।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top