শিরোনাম

রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - আকর্ষণীয় ফিচার নিয়ে বাজারে আসছে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৯ | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - বাংলালিংকের ‘হেলথলিংক ৭৮৯’ সার্ভিসে যুক্ত হল ‘ডক্টরস অ্যাপয়েন্টমেন্ট’ সুবিধা | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - গ্লোবাল ব্র্যান্ড নিয়ে এসেছে লেনোভো আউডিয়াপ্যাড ৩২০ ল্যাপটপ | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - ব্যবসায়ীদের জন্য হোয়াটসঅ্যাপ বিজনেস | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - হ্যাকিংয়ের কাবলে ওয়ানপ্লাস | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - আসছে ইন্টেল কোর আই৯ প্রসেসর এর ল্যাপটপ | রবিবার, জানুয়ারী 21, 2018 - বাণিজ্য মেলায় অপো এফ৫ বিজয়ীদের নাম ঘোষণা | শনিবার, জানুয়ারী 20, 2018 - আরও কঠিন হচ্ছে ইউটিউব থেকে উপার্জন | শনিবার, জানুয়ারী 20, 2018 - ফেসবুক হ্যাকড হলে করনীয় | শনিবার, জানুয়ারী 20, 2018 - কর্মজীবি নারীদের মানহানি বন্ধে আহব্বান |
প্রথম পাতা / টেলিকম / ২০২০ সালে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৬১০ কোটি
২০২০ সালে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৬১০ কোটি

২০২০ সালে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৬১০ কোটি

২০২০ সালনাগাদ বিশ্বের ছয় বছরের বেশি বয়সী ৯০ শতাংশ মানুষের হাতে মোবাইল ফোন থাকবে। এ সময়ে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা হবে ৬১০ কোটি।
এ সময়ে মোবাইলে ভিডিও ব্যবহারকারীর সংখ্যা বাড়বে ১০ গুণ। মোবাইলে তথ্য ব্যবহারের ক্ষেত্রে ভিডিও থাকবে সবার ওপরে।
বিশ্বব্যাপী মোবাইল ফোন ব্যবহারের ধরন, তথ্য ও পরিসংখ্যানের ব্যবহার, গ্রাহকদের মানসিকতা, মোবাইল ফোনের প্রযুক্তিসহ এর সঙ্গে যুক্ত নানা বিষয় নিয়ে এরিকসনের এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

ericsson-2010
প্রতিবেদনে জানানো হয়, নতুন মোবাইল সংযোগের ক্ষেত্রে চীন ও ভারতে প্রবৃদ্ধি হয়েছে দ্রুত। আর ২০১৪ সালে বিশ্বব্যাপী স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ৮০ কোটি। এর মাধ্যমে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা ২৭০ কোটিতে পৌঁছেছে।
এরিকসনের জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট রিমা কোরেশী বলেন, মোবাইল হ্যান্ডসেটের দাম কমা এবং নেটওয়ার্কের বিস্তৃতির কারণে মোবাইলের ব্যবহার বেড়েছে। স্থান-কাল-বয়সভেদে মোবাইল প্রযুক্তি হয়ে দাঁড়িয়েছে বিশ্বের সব স্তরের মানুষের কাছে প্রয়োজনীয় ও আকাঙ্ক্ষিত একটি প্রযুক্তি।
প্রতিবেদনটিতে বলা হয়, বর্তমানে মোবাইল ফোন ব্যবহারকারীদের ৩৭ শতাংশ স্মার্টফোন ব্যবহার করেন। ফলে এখন আরও সহজে ইন্টারনেট ব্যবহার-উপযোগী এবং উচ্চ প্রযুক্তির স্মার্টফোন ক্রেতাদের কাছে কাঙ্ক্ষিত।
ভিডিওর দাপট বাড়বে: প্রতিবেদনে জানানো হয়, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমসহ অনলাইনে ভিডিওর ব্যবহার অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে বাড়ছে। খবর, বিজ্ঞাপন, সামাজিক যোগাযোগের ক্ষেত্র থেকে শুরু করে সবগুলো ক্ষেত্রে ভিডিও যুক্ত হচ্ছে। ফোর-জি নেটওয়ার্কে ৪৫ থেকে ৫৫ শতাংশ কনটেন্ট ভিডিওসংশ্লিষ্ট। ইন্টারনেটে ভিডিও সম্প্রচারের ক্ষেত্রে মোবাইল হ্যান্ডসেটের বিষয়টিও গুরুত্ব পাচ্ছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। উচ্চমানের ভিডিও দেখার জন্য বড় পর্দার হ্যান্ডসেট, উচ্চ রেজুলেশনের সেটগুলো প্রাধান্য পাচ্ছে। ভবিষ্যতের দৃষ্টিভঙ্গি থেকে এরিকসন বলছে, ইন্টারনেটে ভিডিও দেখার পরিমাণ অনেক বেড়ে যাবে সামনের দিনগুলোতে। তাদের মতে, ২০২০ সালনাগাদ মোবাইলে ব্যবহার করা ডেটার ৫৫ শতাংশই হবে ভিডিও।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top