শিরোনাম

বুধবার, ডিসেম্বর 13, 2017 - পোক ফিচারটি ফিরিয়ে আনছে ফেসবুক | বুধবার, ডিসেম্বর 13, 2017 - গ্রামীণফোনের প্যানেল আলোচনায় ডিজিটাল চট্টগ্রামের রূপরেখা | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - দেশের সবচেয়ে বড় গেমিং প্লাটফর্ম ‘মাইপ্লে’ চালু করলো রবি | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - রাজধানীতে টেকনোর আরও নতুন দুইটি ব্র্যান্ড শপের শুভ উদ্বোধন | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - বৃহস্পতিবার থেকে রাজধানীতে ল্যাপটপ মেলা | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - মোবাইল ইন্টারনেট গতিতে বাংলাদেশের অবস্থান ১২০তম | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - জরুরি সেবা ৯৯৯ এর উদ্বোধন করলেন জয় | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - নতুন অ্যাপ ‘ফাইলস গো’ চালু করেছে গুগল | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - বাজারে এলো শাওমির নতুন দুই ফোন | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর 12, 2017 - বিশ্ব বিখ্যাত পাঁচ রাঁধুনি রোবট |
প্রথম পাতা / সাম্প্রতিক খবর / ফিচার পোস্ট / ৪টি কারণে এড়িয়ে চলুন ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন
৪টি কারণে এড়িয়ে চলুন ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন

৪টি কারণে এড়িয়ে চলুন ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন

সম্প্রতি প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট টেকট্রি এক প্রতিবেদনে ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন কেন এড়িয়ে চলা উচিত, সে বিষয়ে চারটি যৌক্তিক কারণ জানিয়েছে।

dual-sim-smartphone

টেকট্রি’র সে প্রতিবেদনটির আলোকে চলুন বিস্তারিতভাবে জেনে নেই সে চারটি কারণ–

অগোছালো ইন্টারফেইস

বর্তমানের এক সিমের স্মার্টফোনগুলোতে এমনিতেই প্রচুর অপশন ও সেটিংস দেওয়া থাকে। ব্লুটুথ, ওয়াই-ফাই, লোকেশন, স্ক্রিন রোটেশন, মোবাইল ডেটা, জিপিএস, এনএফসি, ফ্লাইট মোড ইত্যাদি ঠিকমতো নিয়ন্ত্রণ করতেই হিমশিম খেয়ে যান ব্যবহারকারীরা। কখনও কখনও এসব কারণে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরা বিরক্তও বোধ করেন।

সাধারণ স্মার্টফোনেই যদি ব্যবহারকারীদের এ ঝামেলা পোহাতে হয় তাহলে সহজেই বোঝা যায় ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন নিয়ন্ত্রণে কী পরিমাণ সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। ডুয়াল-সিম স্মার্টফোনে এসব অপশনগুলোর সঙ্গে ব্যবহারকারীকে দুটি সিমের মেসেজ, কল লগ আলাদাভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে হয়। দ্বৈত সিম সমস্যার কারণে অনেক সময়েই মেনুতে গিয়ে ব্যবহারকারীকে নির্ধারণ করতে হয় কোন কাজটির জন্য কোন সিমটি ব্যবহার করতে হবে। এছাড়া এ ধরনের ফোনে অসংখ্য নোটিফিকেশনের সমস্যা তো আছেই।

ব্যাটারি চার্জ সমস্যা

একটি সিমের স্মার্টফোনগুলোর ব্যাটারি ম্যানেজমেন্ট মেনুতে গেলে দেখতে পারবেন এ ফোনগুলোতে চার্জ অনেকটাই কম খরচ হয়। কিন্তু ডুয়াল-সিমের স্মার্টফোনগুলোতে চার্জ বেশ দ্রুতই খরচ হয়। এর অন্যতম একটি কারণ হচ্ছে ডুয়াল-সিমের কোনো একটি সিম যদি কম সিগন্যাল পেতে থাকে তাহলে স্মার্টফোনটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে ব্যাটারির চার্জ খরচ করে সিগন্যাল বাড়াতে চেষ্টা করে। এদিক থেকেও চিন্তা করলে ডুয়াল-সিমের চেয়ে এক সিমের স্মার্টফোনই সুবিধাজনক।

20130225222700819_WL54YCL2

 নির্ভরযোগ্য নয়

 দুটি সিম কার্ড ব্যবহারের প্রধান উদ্দেশ্যই হচ্ছে প্রয়োজনের সময় সংযুক্ত থাকা, যোগাযোগ করতে পারা। কিন্ত আপনার ডুয়াল-সিম স্মার্টফোনটির ব্যাটারির চার্জই যদি দ্রুত শেষ হয়ে যায়, তাহলে দুটি সিম থাকা সত্ত্বেও সংযুক্ত থাকা বা যোগাযোগ করা সম্ভব নয়। আর এ অবস্থাতেও নেটওয়ার্কে থাকতে হলে ব্যবহার করতে হবে দ্বিতীয় কোনো ফোন। দ্বিতীয় ফোনই যদি ব্যবহার করতে হয়, তাহলে ডুয়াল-সিম স্মার্টফোন ব্যবহার করার কী প্রয়োজন!

মানসম্পন্ন ডুয়াল-সিম স্মার্টফোনের স্বল্পতা

জনপ্রিয় স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো সাধারণত ডুয়াল-সিম ফোন তৈরি করে না। খুব কম সংখ্যক মোবাইল নির্মাতাই এ ধরনের ফোন তৈরি করে থাকে। এছাড়াও জনপ্রিয় স্মার্টফোনগুলোতে যেসব সুবিধা রয়েছে তা এ ধরনের স্মার্টফোনে পাওয়া যায় না। ফলে আপনি যদি আইফোন, লুমিয়া, নেক্সাস, এলজি বা এইচটিসি ওয়ানের মতো স্মার্টফোনের মজা উপভোগ করতে চান, তাহলে আপনাকে ইচ্ছা না থাকা সত্ত্বেও এক সিমের স্মার্টফোনই ব্যবহার করতে হবে।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top