শিরোনাম

বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - গাড়ি চালাতে এবার থেকে আর কোনও চাবির প্রয়োজন নেই! | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - বিজয়ী কাস্টমারদের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে সিম্ফনি ঈদ অফার | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - বিশ্বব্যাপী সাইবার হামলায় ৬ মাসেই ক্ষতি ৪০০ কোটি ডলার | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - এইচটিসি স্মার্টফোন ব্যবসা কিনতে গুগলকে গুনতে হবে ১১০ কোটি ডলার | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - টাকা না পেলে টেলিটক মারা যাবে : ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - ইউনিক বিজনেস সিস্টেমস লিমিটেড পরিদর্শনে হিটাচি এক্সক্লুসিভ টিম | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী’র ‘অ্যাসোসিও ডিজিটাল গভর্নমেন্ট অ্যাওয়ার্ড’ গ্রহণ | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে এয়ারটেল’র ‘ইয়োলো ফেস্ট’ | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - প্রতিষ্ঠানের নিরাপত্তায় নতুন দেশি অ্যাপ | বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর 21, 2017 - ড্যাফোডিলে ‘সমন্বিত শিক্ষণ পদ্ধতিতে গুগল ক্লাসরুমের ব্যবহার’ শীর্ষক লেকচার সেমিনার অনুষ্ঠিত |
প্রথম পাতা / সাম্প্রতিক খবর / বাংলাদেশে এক্সপার্ট এডুকেটরস্ এন্ড মেন্টর স্কুল-এর নাম ঘোষণা করলো মাইক্রোসফট
বাংলাদেশে এক্সপার্ট এডুকেটরস্ এন্ড মেন্টর স্কুল-এর নাম ঘোষণা করলো মাইক্রোসফট

বাংলাদেশে এক্সপার্ট এডুকেটরস্ এন্ড মেন্টর স্কুল-এর নাম ঘোষণা করলো মাইক্রোসফট

প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে শিক্ষা ব্যবস্থা বদলে দিয়ে দক্ষ প্রশিক্ষক ও স্কুলগুলোকে বিশ্বমানের লিডার হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করার একটি পদক্ষেপ মাইক্রোসফট বাংলাদেশ অত্যন্ত আনন্দিত যে বাংলাদেশ থেকে একজন শিক্ষক ও একটি স্কুল মাইক্রোসফ্ট-এর “এক্সপার্ট এডুকেটর এন্ড মেন্টর স্কুলস্ প্রোগ্রাম”-এ অংশগ্রহণ করতে যাচ্ছে। উক্ত প্রোগ্রামদ্বয়ে সদস্যবৃন্দ এক বছরের একটি বিশেষ উদ্যোগে অংশগ্রহণ করবে যা তাদের প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে শিক্ষা ব্যবস্থা বদলে দেয়া একজন দক্ষ প্রশিক্ষক এবং স্কুল লিডার হিসেবে স্বীকৃতি দেবে।

Partners-in-learning-Networ

এডুকেশন এ্যাট মাইক্রোসফ্ট-এর ভাইস প্রেসিডেন্ট অ্যান্থনি সালসিটো বলেন, “২১ শতকের সাথে শিক্ষার্থীদের উপযোগী করে তোলার জন্য কীভাবে কোন ব্যক্তি অথবা স্কুল প্রযুক্তির ব্যবহার করছে মাইক্রোসফটএক্সপার্ট এডুকেটরস্ এন্ড মেন্টর স্কুল তার একটি উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত। তারা ক্লাসরুমে কেবলমাত্র উদ্ভাবনমূলক কিছু কর্মকান্ডের মাঝেই সীমাবদ্ধ থাকছেন না, বরং অন্যদের উৎসাহ প্রদান এবং নিজস্ব শিক্ষা ব্যবস্থাকে বদলে দিতেও সক্রিয় ভূমিকা পালন করছেন। সহকর্মীদের মাঝে তারা এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করছেন এবং আমরা আশাবাদী তারা মাইক্রোসফ্ট-এর চলতি প্রোগ্রামগুলোর মাধ্যমে প্রযুক্তির সান্নিধ্যে এসে আরো উপকৃত হবেন।”
এক্সপার্ট এডুকেটর প্রোগ্রাম প্রতিবছর বিশ্বের ২৫০ জন এডুকেটরদের প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে শিক্ষা ব্যবস্থাকে বদলে দেয়া বিশিষ্ট শিক্ষক সমাজের এই সম্মেলনে অংশগ্রহণ করতে আমন্ত্রণ জানায়। এতে আমন্ত্রিত হতে হলে শিক্ষকদের কঠোর আবেদন প্রক্রিয়ার মধ্যে দিয়ে যেতে হয়, যার মাঝে রয়েছে অনলাইনে আবেদন এবং শিক্ষামূলক কর্মকান্ডসমূহ ও ভিডিও। তাঁদের একটি শিক্ষামূলক কর্মকান্ড তৈরি করে তার উপর ২-৩ মিনিটের একটি অপেশাদার ভিডিও তৈরি করতে হয় যাতে প্রকল্পটির বর্ণনা এবং এর ফলে শিক্ষার্থীরা কীভাবে প্রযুক্তির ব্যবহার এবং উদ্ভাবনী শিক্ষা ব্যবস্থার ফলে উপকৃত হচ্ছে তার বিস্তারিত বর্ণনা করতে হয়। বিশ্বব্যাপী গঠিত একটি বিশেষ বিচারকদল শিক্ষকবৃন্দের শিক্ষা ব্যবস্থা ও তার প্রমাণাদি, সহযোগিতা ইত্যাদি বিভিন্ন দিক বিস্তারিত বিবেচনাপূর্বক বিজয়ীদের বেছে নিয়ে থাকেন।
এক্সপার্ট এডুকেটর এন্ড মেন্টর স্কুলস্ শিক্ষা ব্যবস্থায় নতুনত্ব নিয়ে আসা, সহকর্মী ও নীতি নির্ধারকদের সাথে নিয়ে শিক্ষা ব্যবস্থায় প্রযুুক্তির যথাযথ ব্যবহার করার অভিজ্ঞতা সমর্থন ও অংশীদারিত্ব প্রদানে মাইক্রোসফ্ট-এর সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করে থাকে।
এছাড়াও অন্যান্য শিক্ষকদের উৎসাহ প্রদান এবং শিক্ষামূলক প্রযুক্তি ও মাইক্রোসফ্ট-এর অন্যান্য পণ্য ও যন্ত্রাদি ব্যবহারের মাধ্যমে অন্যান্য শিক্ষকদের উৎসাহ ও প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকে।
দক্ষ প্রশিক্ষক অথবা মেন্টর হিসেবে চিহ্নিত হতে হলে স্কুল ও শিক্ষকবৃন্দকে নতুনত্ব এবং প্রতিজ্ঞাবদ্ধভাবে শিক্ষার্থীদের ২১ শতকের লিডার হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে তুলতে বাধা অতিক্রমের উপযোগী হতে হয়। শিক্ষাক্ষেত্রে বিগত সাফল্যসমূহ, সামাজিক কর্মকান্ডে

সক্রিয় অংশগ্রহণ এবং স্কুল ব্যবস্থাপনায় সাফল্য বিবেচনা করে স্কুলগুলোকে বেছে নেয়া হয়। অন্যদিকে, নতুনত্ব, নেতৃত্বে দক্ষতা এবং প্রযুক্তির যথাযথ ব্যবহার করে শিক্ষার্থীদের আরো ভালো শিক্ষা প্রদান বিবেচনাপূর্বক এডুকেটরদের বেছে নেয়া হয়।
দক্ষ প্রশিক্ষক এবং মেন্টর স্কুলগুলো বিভিন্ন সুবিধাদি পেয়ে থাকে যার মাঝে রয়েছে-
ক্স ২০১৪ সালের মার্চে বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিতব্য মাইক্রোসফটইন এডুকেশন গ্লোবাল ফোরাম-এ অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ
ক্স স্কুলগুলোর জন্য ফ্রি সার্ফেস ডিভাইসসমূহ
ক্স মাইক্রোসফ্ট-এর স্ট্র্যাটেজি ও টেকনোলজি-তে বিশেষ প্রবেশাধিকার
ক্স পিয়ার কোচিং-এর পাশাপাশি প্রফেশনাল ও ক্যারিয়ার ডেভেলপমেন্ট সুবিধাদি এবং সার্টিফিকেট
মোহাম্মদ মহিউল হক বলেন, “মাইক্রোসফটএক্সপার্ট এডুকেটরস্-এর একজন হতে পেরে আমি অত্যন্ত আনন্দিত। ভবিষ্যতে মাইক্রোসফটইন এডুকেশন গ্লোবাল ফোরাম-এ অংশগ্রহণের জন্য আমি উদগ্রীব এবং সেখানে সমমনা শিক্ষকদের সাথে মতবিনিময়ের অভিজ্ঞতা, মেন্টরিং ও শিক্ষা সুবিধাসমূহ কাজে লাগিয়ে সবোর্চ্চটি আদায় করে নেয়ার ব্যপারে আমি আশাবাদী। মাইক্রোসফটএক্সপার্ট এডুকেটর হওয়া আমাকে আমার ছাত্রদের জন্য শিক্ষাদানের ক্ষেত্রে সাহায্য করবে, সেইসাথে শিক্ষাক্ষেত্রে প্রযুক্তির ব্যবহার সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দিবে।”
নাজিরিয়া নাইমা মাহমুদিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল এ প্রসঙ্গে বলেন, “মাইক্রোসফটমেন্টর স্কুল হিসেবে নির্বাচিত হতে পারা আমাদের জন্য অত্যন্ত সম্মানজনক। এই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে বিশ্বমানের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে পারার জন্য আমাদের শিক্ষার্থীদের আরো দক্ষভাবে গড়ে তুলতে পারব বলে আমরা আশাবাদী।”
মাইক্রোসফটবাংলাদেশ-এর এডুকেশন প্রোগ্রামস্ ম্যানেজার সারানা ইসলাম বলেন, “শিক্ষাক্ষেত্রে মাইক্রোসফ্ট-এর কার্যসমূহের আরেকটি ক্ষেত্র হচ্ছে পার্টর্নাস ইন লার্নিং। পাশাপাশি আমাদের আরো অনেক কর্মকান্ড রয়েছে এবং আমাদের বাৎসরিক এ ইভেন্টে আমাদের শিক্ষাক্ষেত্রে এর প্রভাবকে তুলে ধরাটাই আমাদের অন্যতম লক্ষ্য।” বাংলাদেশ দলকে বার্সেলোনায় গ্লোবাল ফোরাম ২০১৪-তে নেতৃত্ব প্রদানের সুযোগ পেয়ে তিনি রোমাঞ্চিত ও গর্বিত।
এক্সপার্ট এডুকেটরস্ এবং মেন্টর স্কুলস্ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে দেখুন www.pil-network.com

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top