ঢাকা | বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই ২০২১, ১৪ শ্রাবণ ১৪২৮ |
২৬ °সে
|
বাংলা কনভার্টার

রিয়েলমি বাডস কিউ২ – দুর্দান্ত ডিজাইন, দীর্ঘ প্লেব্যাক সময় এবং সুপার লো ল্যাটেন্সি

রিয়েলমি বাডস কিউ২ – দুর্দান্ত ডিজাইন, দীর্ঘ প্লেব্যাক সময় এবং সুপার লো ল্যাটেন্সি
রিয়েলমি বাডস কিউ২ – দুর্দান্ত ডিজাইন, দীর্ঘ প্লেব্যাক সময় এবং সুপার লো ল্যাটেন্সি

যুগের সাথে তাল মিলিয়ে বর্তমান সময়ের তরুণরা আরও স্টাইলিশ হয়ে উঠছে। স্টাইলিশ স্মার্ট ডিভাইসের প্রতি তরুণদের এমন চাহিদাগুলোকে সবসময়ই গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করে তরুণদের পছন্দের ব্র্যান্ড রিয়েলমি।

এরই ধারাবাহিকতায়, এবার ব্র্যান্ডটি নিয়ে এসেছে আরেকটি ট্রু ওয়্যারলেস স্টেরিও (টিডব্লিউএস) ইয়ারবাডস – রিয়েলমি বাডস কিউ২। অসাধারণ ডিজাইন ও দুর্দান্ত ফিচারের এই ইয়ারবাডস নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা যাক।

অসাধারণ অডিও কোয়ালিটিতে দীর্ঘক্ষণ প্লেব্যাক সুবিধা

রিয়েলমি বাডস কিউ২ -এ ব্যবহারকারীরা পাবেন ২০ ঘণ্টা প্লেব্যাক সুবিধা। এর বাডস’এ রয়েছে বিল্ট-ইন ৪০ এমএএইচ ব্যাটারি এবং চার্জিং কেস’এ রয়েছে ৪০০ মিলি অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি। ব্যবহারকারীরা এই এয়ারবাডস -এ টানা তিন ঘণ্টা কথা বলতে পারবেন এবং টানা পাঁচ ঘণ্টা গান শুনতে পারবেন, যা টানা দুটি সিনেমা এবং একটি টিভি সিরিজের ৪-৫ টা এপিসোড দেখার সমান। চার্জিং কেস সহ রিয়েলমি বাডস কিউ২ দিবে ২০ ঘণ্টা প্লেব্যাক, যা ৮টি সিনেমা দেখা বা ৪শ’টি গান শোনা অথবা দু’টি টিভি সিরিজ দেখার সমান।

প্রতিদিন গড়ে প্রায় তিন ঘণ্টা ব্যবহার করা হলে, রিয়েলমি বাডস কিউ২ সপ্তাহে মাত্র একবার চার্জ দেয়ার প্রয়োজন হবে। এটি মাইক্রো-ইউএসবি পোর্ট দিয়ে চার্জ দেয়া যাবে। বাডস সহ চার্জিং কেস সম্পূর্ণ চার্জ হতে সময় নেয় আড়াই ঘণ্টা এবং শুধু চার্জিং কেস সম্পূর্ণ চার্জ হতে সময় নেয় দুই ঘণ্টা।

এই ইয়ারবাডস’এর ১০মিমি বেস বুস্টার ড্রাইভার ও রিয়েলমি বেস ইনহ্যান্সমেন্ট এলগোরিদমের সংমিশ্রণ ব্যবহারকারীদের দিবে স্পষ্ট স্টেরিও অনুভূতি ও অসাধারণ মিউজিক অভিজ্ঞতা। এতে ব্যবহার করা হয়েছে রিয়েলমি’র অ্যাকুয়েস্টিক টিমের নানা নিরীক্ষার মাধ্যমে তৈরি অত্যাধুনিক বেস বুস্ট + সল্যুশন, যা অনন্য সুরের মূর্ছনা দিয়ে মিউজিক প্রেমীদের হৃদয়কে রাঙ্গিয়ে তুলবে। রিয়েলমি বাডস কিউ২ আশ্চর্যজনক দামের পাশাপাশি দুর্দান্ত সাউন্ড কোয়ালিটি দিচ্ছে।

ক্যালাইডোস্কোপের ডিজাইনে অনুপ্রাণিত ভবিষ্যতমুখী আকর্ষণীয় ডিজাইন

রিয়েলমি বাডস কিউ২ প্রথম দেখাতেই নজর কেড়ে নেবে এর ক্যালেইডোস্কোপের অনুপ্রেরণায় নান্দনিক নকশা। বাজারের অন্যান্য টিডব্লিউএস ডিভাইসের সাধারণ মানের ডিজাইন থেকে বেরিয়ে এসে রিয়েলমি বাডস কিউ২ -এ ক্যালাইডোস্কোপের নন্দনতাত্ত্বিক ডিজাইন ব্যবহার করা হয়েছে।

এই অসাধারণ ডিজাইনটি ছোট পাথরের নান্দনিক সৌন্দর্য্যের বহিঃপ্রকাশ ঘটায়। রিয়েলমি বাডস কিউ২ নীল ও কালো দু’টি রঙেই পাওয়া যাচ্ছে। এর ডিজাইন বেশ আকর্ষণীয় ও ভবিষ্যতমুখী।

এই ইয়ারবাডস এর ওজন (৪.১ গ্রাম) এতই কম যে এটি এক পাতা কাগজের চেয়েও হালকা। ফলে, ব্যবহারকারীদের জন্য এটি অত্যন্ত আরামদায়ক হবে। বর্তমান বাজারে বাডস কিউ২-এর মতো পরিশীলিত ডিজাইন সম্বলিত এয়ারবাডস পাওয়া দুরূহ ব্যাপার।

৮৮এমএস সুপার লো ল্যাটেন্সি

রিয়েলমি বাডস কিউ২ তরুণদেরকে দিবে অসাধারণ অভিজ্ঞতা। এই ইয়ারবাডসগুলোর ল্যাটেন্সি ইন্ডাস্ট্রির সর্বনিম্ন (৮৮এমএস), যা সিনক্রোনাইজ করার সমস্যা ছাড়াই দিবে অসাধারণ গেমিং অভিজ্ঞতা। লো ল্যাটেন্সি মোডে ভিডিও ও অডিও’র সঠিক সমন্বয় বজায় রেখে মুভি দেখা ও গেম খেলাকে আরও প্রাণবন্ত করে তোলে।

ল্যাটেন্সি ৫১ শতাংশ কমানো হয়েছে, এটা ৮৮ এমএস -এ ফোন থেকে রিয়েলমি বাডস কিউ২ -তে শব্দ ট্রান্সফার করে। বাজারে এমন সুপার লো ল্যাটেন্সির ইয়ারবাডস খুবই কম এবং এই দিক থেকে রিয়েলমি বাডস কিউ২ সবার থেকে এগিয়ে আছে।

চমৎকার সব ফিচার

অত্যাধুনিক ফিচারের সমন্বয়ে তৈরি রিয়েলমি বাডস কিউ ২ ব্যবহারকারীদের অভিজ্ঞতাকে নিয়ে যাবে অনন্য উচ্চতায়।

এসব ফিচারের মধ্যে রয়েছে: তাৎক্ষনিক সংযোগ, ইনটেলিজেন্ট টাচ কন্ট্রোল, পানি প্রতিরোধী ফিচার, যা ব্যবহারকারীদের লাইফস্টাইলকে অর্থবহ করে তোলে। একসাথে অনেকগুলো স্মার্ট ফিচার সহ এমন এক জোড়া ইয়ারবাডস অবশ্যই ব্যবহারকারীদের মনোযোগের যোগ্য।

টেক ট্রেন্ডসেটিং ব্র্যান্ড হিসেবে রিয়েলমি ফাইভ-জি জনপ্রিয় করে তোলার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে। এ বিবেচনায়, আগামী ৩ বছরের মধ্যে ১০ কোটি তরুণদের কাছে ফাইভজি স্মার্টফোন পৌঁছে দেবে রিয়েলমি। ফাইভজি মোবাইলের পাশাপাশি তরুণ গ্রাহকদের জন্য রিয়েলমি দারাজের মাধ্যমে আরও আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স অব থিংস (এআইওটি) পণ্য বাজারে আনবে।

ইতিমধ্যে রিয়েলমি এআইওটি ২.০ স্তরে প্রবেশ করেছে এবং তাদের রয়েছে ‘১+৫+টি’ কৌশল। এই কৌশলে ‘১’ হচ্ছে একটি স্মার্টফোন। ‘৫’ হলো ৫ ক্যাটাগরির এআইওটি পণ্য, যেমন – ট্রু ওয়্যারলেস স্টেরিও (টিডব্লিউএস), ওয়্যারেবলস, টিভি, ল্যাপটপ ও ট্যাবলেট। আর ‘টি’ মানে হলো, টেক লাইফ যা রিয়েলমির উন্মুক্ত অংশীদারিত্বের প্ল্যাটফর্ম। এর লক্ষ্য হলো রিয়েলমির নিজস্ব বিক্রয় চ্যানেলগুলো শেয়ার করার মাধ্যমে উদ্ভাবনী এআইওটি ভিত্তিক উদ্যোক্তাদের সহায়তা করা।

রিয়েলমি বাডস কিউ২ ক্ল্যাসিক ব্ল্যাক এবং ইউনিক ব্লু কালারে পাওয়া যাচ্ছে। এর বাজারমূল্য মাত্র ১,৯৯৯ টাকা। কেনার জন্য ক্লিকঃ https://cutt.ly/BuyNow_realmeBudsQ2

এককথায় বলতে গেলে, এই ইয়ারবাডস দেখতে অনবদ্য, এর ব্যাটারি দুর্দান্ত, সাউন্ড কোয়ালিটি অসাধারণ এবং কানেক্টিভিটি চমৎকার। ইয়ারবাডস প্রেমীরা যা যা চান তার সবই আছে রিয়েলমি বাডস কিউ২ -এ।

রিয়েলমি,বাডস কিউ২
আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়