শিরোনাম

মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - সিটিআইটি ফেয়ার-২০১৭ কম্পিউটার মেলা শুরু বৃহস্পতিবার | মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - চালু হল ঘড়ি বিক্রয়ের ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান টাকশাল | মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - আরও দ্রুত ডাউনলোড অপেরা মিনিতে | মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - স্মার্ট স্টুডেন্টস অ্যাপ বানালো ডিআইইউ’র শিক্ষার্থীরা | মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - সিইবিআইটি মেলায় ডিজিটাল রূপান্তরের অংশীদার হুয়াওয়ে | মঙ্গলবার, মার্চ 28, 2017 - বাংলাদেশে উন্মুক্ত হলো অপো সেলফি এক্সপার্ট এফ৩ প্লাস | শনিবার, মার্চ 25, 2017 - ঢাকায় রোজেন বারগার টেকনোলজিষ্টের পার্টনার্স নাইট | বৃহস্পতিবার, মার্চ 23, 2017 - উভয় পাশ স্ক্যান সুবিধার স্ক্যানার আনলো ইপসন | বৃহস্পতিবার, মার্চ 23, 2017 - প্রপার্টি ভাড়া ও কেনা-বেচায় বিপ্রপার্টি ডটকম | বুধবার, মার্চ 22, 2017 - স্বল্পমূল্যের ল্যাপটপ কিনতে সাবধান ! |
প্রথম পাতা / কর্পোরেট স্পেশাল / ইন্টারনেটের প্রভাবে হারিয়ে গেছে ঈদ কার্ডের সংস্কৃতি
ইন্টারনেটের প্রভাবে হারিয়ে গেছে ঈদ কার্ডের সংস্কৃতি

ইন্টারনেটের প্রভাবে হারিয়ে গেছে ঈদ কার্ডের সংস্কৃতি

eid20160706160836

আজ ঈদ। ঈদ ঘিরে প্রিয় মানুষকে শুভেচ্ছা জানানোর চর্চা সেই আদিকাল থেকেই। তবে দীর্ঘদিন ধরে চলে আসা ‘ঈদ কার্ড’ সংস্কৃতি ইন্টারনেটের প্রভাবে এখন দ্রুত অতীত হয়ে যাচ্ছে। ৫/৭ বছর আগেও ঈদ কার্ড ছাড়া ঈদের অনূভূতি যেখানে অপূর্ণ থাকতো সেখানে নতুন প্রজন্মের কাছে ‘ঈদ কার্ড’ এক অচেনা বস্তু!

আগে গ্রামগঞ্জের পাড়া মহল্লা থেকে রাজধানীর সব বড় শপিংমলে ছিল রঙিন ঈদ কার্ডের পসরা। ছড়াছন্দে লেখা নানান শুভেচ্ছা বার্তা খচিত কার্ড শিশু বুড়ার অপরিহার্য ঈদের পাথেয় ছিল। ছিল এক অন্য জগতের ভালবাসা প্রেম স্নেহ আর সম্মানের মাধ্যম। কে কাকে কী লিখে ঈদকার্ড দিচ্ছে এ নিয়ে চলতো নানা কৌতূহল। প্রিয়জনের কাছ থেকে বিশেষ কার্ডটি পাওয়ার আশায় দিন গুনতো অনেকেই। অবশেষে কোনো এক কাঙ্ক্ষিত দিনে প্রিয়জনের কাছ থেকে সেই কার্ড পাওয়ার পর ঈদ আনন্দ যেন বেড়ে যেত বহুগুণে!

ঈদ কার্ড তৈরির জন্য বিখ্যাত রাজধানীর আজাদ প্রোডাক্টস, আইডিয়াল প্রোডাক্টসে নেই ঈদ কার্ড তৈরির ধুম। বিক্রেতারা জানালেন, ঈদকার্ড বিক্রির সেই সোনালি দিন এখন অতীত। রাজনৈতিকভাবে কিছু ঈদকার্ড এখনও বিনিময় হয় বলে কিছু কাজ থাকে। মূলত আমাদের টিকে থাকতে হচ্ছে বিয়ের কার্ড ছাপানোর ওপর ভিত্তি করেই। একসময় ঈদকার্ডের সেই জায়গা দখল করলো মোবাইল ফোনের এসএমএস। শুভেচ্ছা বার্তা লিখে পাঠিয়ে দেওয়া হতো কাঙ্ক্ষিত মানুষের নম্বরে। উত্তরে আসতো পাল্টা শুভেচ্ছা বার্তা। তবে সে ধারাও এখন প্রায় বিলুপ্তির পথে।

ঈদ কার্ডের বদলে মানুষ এখন অভিনব পদ্ধতিতে আমন্ত্রণ জানাচ্ছে তার প্রিয় মানুষটিকে। ঈদ শুভেচ্ছার জন্য এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকেই প্রধান পাথেয় হিসেবে মনে করা হচ্ছে। ফেসবুক, টুইটার থেকে শুরু করে যোগাযোগের অ্যাপস এখন তরুণদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। ফলে ঈদ কার্ডের পর এখন ঈদের এসএমএসও হারিয়ে যাচ্ছে। জায়গা করে নিচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো। ভার্চুয়াল জগতে তাই প্রিয়.কমও তার পাঠকদের জানাচ্ছে আজ ঈদের শুভেচ্ছা। সবাইকে ঈদ মোবারক।

Comments

comments



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। Required fields are marked *

*

Scroll To Top