ঢাকা | বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৮ মাঘ ১৪২৯ |
২০ °সে
|
বাংলা কনভার্টার
walton

ফায়ার সেফটি ছাড়া কোন ভবন অনুমোদন নয়: দুর্যোগ ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী

ফায়ার সেফটি ছাড়া কোন ভবন অনুমোদন নয়: দুর্যোগ ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী
ফায়ার সেফটি ছাড়া কোন ভবন অনুমোদন নয়: দুর্যোগ ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী

দুর্যোগ ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান বলেছেন, ফায়ার সেফটি ছাড়া কোন ভবন নির্মাণ করা হলে তা ব্যবহারের অনুমোদন দেওয়া হবে না। এখন থেকে যে ভবনগুলো হবে সেগুলোতে ফায়ার সেফটি থাকতে হবে। ফায়ার সেফটি সনদ থাকলেই সেই ভবন ব্যবহারের অনুমতি দেবে রাজউক বা সিটি কর্পোরেশন এছাড়া দেওয়া হবে না।

শুক্রবার রাতে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) ইলেকট্রনিক্স সেফটি এন্ড সিকিউরিটি এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ইসাব) আয়োজিত ৮ম আন্তর্জাতিক ফায়ার, সেফটি এন্ড সিকিউরিটি এক্সপো ২০২২ এর সেফটি এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

দুর্যোগ ও ত্রান প্রতিমন্ত্রী বলেন, আমাদের দেশের কোম্পানিগুলো ফায়ার সেফটি ও কম্পায়েন্স মেনে চলায় বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় এগিয়ে রয়েছে। বিশ্বের ১০ টি গ্রিন কারখানার আটটি এখন বাংলাদেশে অবস্থিত। যার ফলে বাংলাদেশের পণ্যের চাহিদা বেড়েছে, উৎপাদন বেড়েছে এবং আমরা বেশি রপ্তানি করতে পারছি।

তিনি বলেন, ফায়ার সেফটি পণ্য বেশিরভাগই দেশের বাইরে থেকে আমদানি করা হচ্ছে। আমরা আমদানি নির্ভর থাকতে চাই না। দেশে একশটি ইকোনমিক জোন হচ্ছে সেখানেই ফায়ার সেফটি পণ্য উৎপাদন করা যেতে পারে বলে তিনি উল্লেখ করেন। ইকোনমিক জোনে প্লট পেতে কোন সহযোগিতা লাগলেও জানানোর কথা বলেন এনামুর রহমান।

এনামুর রহমান বলেন, দেশের ৩২টি উপজেলায় নতুন করে ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন স্থাপন করা হয়েছে এটা দেশের বড় অর্জন। আমাদের সবকিছুতেই অর্জন আছে এ অর্জন আরো বাড়াতে হবে। ব্যবসা বাণিজ্যের শিল্পের জন্য এসব যন্ত্রপাতি খুবই প্রয়োজন সেটাই সরকার মনে করে।

অনুষ্ঠানে ইলেক্ট্রনিক্স সেফটি অ্যান্ড সিকিউরিটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ইসাব) অগ্নি নিরাপত্তা সঠিকভাবে বজায় রাখার জন্য নয়টি কোম্পানিকে পুরস্কৃত করেছে। এছাড়া চট্টগ্রামের সীতাকুন্ডু বিএম কনটেইনার ডিপোতে আগুন ও বিস্ফোরণ মোকাবেলায় অগ্নিকাণ্ডে নিহত ফায়ার ফাইটারদের সম্মাননা এবং তাঁদের পরিবারের সদস্যদের মধ্যে আর্থিক উপহার বিতরণ করেছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মোঃ এনামুর রহমান অনুষ্ঠানে তাদের মধ্যে সম্মাননা এবং আর্থিক উপহার তুলে দেন।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন এফবিসিসিআই সহ-সভাপতি আমিন হেলালী এবং ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের পরিচালক (প্রশিক্ষণ, পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) লেফটেন্যান্ট কর্নেল রেজাউল করিম। এছাড়া অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন ইসাব সভাপতি জহির উদ্দিন বাবর, মহাসচিব মাহমুদুর রশীদ, জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি নিয়াজ আলী চিশতী, প্রচার সম্পাদক নজরুল ইসলাম প্রমুখ।

ফায়ার সেফটি,দুর্যোগ ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী,ডা. এনামুর রহমান
আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়